মুসলমানদের কোরআন নদীতে ফেলতে বাধ্য করছে চীনা কমিউনিস্ট সরকার

প্রকাশিত: ২:৪৫ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৬, ২০২০

মুসলিমদের পবিত্র ধর্মগ্রন্থ কোরআন বাজেয়াপ্ত করছে চীনের কমিউনিস্ট পার্টির সরকার। শুধু তাই নয়, যার কাছে কোরআন পাওয়া যাচ্ছে তার ওপরই অকথ্য অত্যাচারও চালাচ্ছে। সম্প্রতি এই এরকম একটি ঘটনার সময় কোরআন নদীতে ফেলে দেন চীনের মুসলিম সম্প্রদায়ের কয়েকজন মানুষ।

 

 

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, কিছুদিন ধরেই শি জিনপিং -এর প্রশাসন মুসলিমদের পবিত্র ধর্মগ্রন্থ কোরআন বাজেয়াপ্তের পর নষ্ট করছে। সম্প্রতি চীনের আলমাটি অঞ্চলের পানফিলভ জেলার এড্যারলি গ্রামে প্রশাসনের হাত থেকে বাঁচতে কয়েকজন মুসলিম স্থানীয় ইলি নদীতে কোরআন ফেলে দেন। আর এই ঘটনার খবর প্রকাশ্যে আসতে বিশ্বজুড়ে বিতর্ক তৈরি হয়েছে।

 

ওই প্রতিবেদনে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, এই ঘটনা শুধু ওই এলাকার নয় জিনজিয়াং প্রদেশের বিভিন্ন এলাকাতে প্রতিদিন এই ঘটনাই ঘটছে। বিভিন্ন বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে কোরআন বাজেয়াপ্ত করছে চীনের প্রশাসন। এর পাশাপাশি অকথ্য অত্যাচারও চালাচ্ছে। তাই বাধ্য হয়ে বেশিরভাগ উইঘুর মুসলিম সম্প্রদায়ের মানুষ কোরআনের পবিত্রতা রক্ষার তা নদীতে ফেলে দিচ্ছেন।

 

 

উল্লেখ্য, চীনের জিনজিয়াং প্রদেশে উইঘুর মুসলিমদের নির্মূল করতে দীর্ঘদিন ধরে নানা উপায়ে অত্যাচার চালাচ্ছে চীনের সরকার। নারীদের জোর করে গর্ভপাত করানো থেকে শুরু করে ছেলে-মেয়েদের উভয়কেই বন্দিশিবিরে আটকে রাখা হচ্ছে। নির্মম অত্যাচার চালানোর পাশাপাশি উইঘুর সম্প্রদায়ের মানুষের কিডনি খুলে বিক্রি করার অভিযোগও উঠেছে শি জিনপিংয়ের প্রশাসনের বিরুদ্ধে। তবে চীনের পক্ষ থেকে এই সব অভিযোগ সবসময় অস্বীকার করেছে চীন।